প্রচ্ছদ জীবন-যাপন

‘পালিত কন্যা’ নিপাকে এরশাদ বিয়ে করলেন, নাকি বিয়ে দিলেন?

176
‘পালিত কন্যা’ নিপাকে এরশাদ বিয়ে করলেন, নাকি বিয়ে দিলেন?

এরশাদকে নিয়ে গতকাল অনলাইন পত্রিকায় প্রকাশিত একটি পরস্পর বিরোধী সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে।

সেই বিয়ের অনুষ্ঠানে এরশাদ ও কনের ছবি পাওয়া গেলেও বরের কোন ছবি পাওয়া যায়নি। এখানেই সন্দেহ দেখা দিয়েছে। এরশাদের বিয়ের ঘটনা নতুন তো নয়! এ বিষয়টি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিতর্কের ঝড় বইছে।

এবার দেখে নেয়া যাক পরস্পর বিরোধী সংবাদটি

আমার দেশ পত্রিকার অনলাইন সংস্করণে প্রকাশিত সংবাদ:

‘পালিত কন্যা’ নিপাকে বিয়ে করলেন এরশাদ!

রাজধানীর তাঁতী বাজারের নিম্ন বিত্ত পরিবারের মেয়ে নিপা কর্মকার। নিপার জন্মদাতা পিতার নাম নারায়ণ কর্মকার। নারায়ণ কর্মকারের সঙ্গে এরশাদের সর্ম্পক দীর্ঘদিনের। সে সুবাদে নিপাকে ছোটবেলা থেকেই পিতৃস্নেহে বড় করেন এরশাদ।

এরশাদ নিপাকে ক্লাস ওয়ান থেকে মাস্টার্স পর্যন্ত লেখাপড়া করিয়েছেন। গতকাল ঢাকেশ্বরী মন্দিরে সেই মেয়েটিকে বিয়ে করেন তিনি।

একজন পিতা হিসেবে মেয়ের প্রতি যে দায়িত্ব পালন করা দরকার তার সব টুকুই করেছেন তিনি। সর্বশেষে গতকাল সোনা গয়না থেকে শুরু করে বিয়ের যাবতীয় খরচ বহন করে এরশাদ তার পালিত কন্যাকে নিজের হাতে তুলে নেন।

এরশাদের সঙ্গে এ সময় উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা, সুনীল শুভ রায়, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক সম্পাদক সুজন দে, নিপার জন্মদাতা পিতা নারায়ণ কর্মকারসহ নিপার কয়েক শতাধিক আত্মীয় স্বজন।

বাংলাদেশ প্রতিদিন অনলাইনে প্রকাশিত সংবাদ:

পিতা হিসেবে মেয়েটির বিয়ে দিলেন এরশাদ

নিপা রানী কর্মকার নামে এক হিন্দু মেয়ের পিতা হিসেবে তার বিয়ের যাবতীয় ব্যয় বহন করেছেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। শুধু ব্যয় বহন করেননি, নিজে বিয়েতে উপস্থিত থেকে পালিত কন্যা নিপাকে সোনার গহনা পরিয়ে আর্শীবাদ করেন তিনি।

গতকাল শনিবার দিবাগত রাতে রাজধানীর ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দিরে নিপার বিয়ে অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় এরশাদের সঙ্গে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা এমপি, সুনীল শুভ রায়, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক সম্পাদক সুজন দে, নিপার জন্মদাতা পিতা নারায়ন কর্মকারসহ নিপার কয়েক শতাধিক আত্বীয়-স্বজন উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে নিপা রানী কর্মকারের পিতা হিসেবে এরশাদ নিজে মন্দিরে উপস্থিত হয়ে বিয়ে দেওয়ার খবর ছড়িয়ে পড়লে মন্দিরে ছুঠে আসেন বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি জয়ন্ত সেন দিপু, সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট তাপস পাল, ঢাকা মহানগরের সভাপতি দিপেন চ্যাটার্জী, সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট শ্যামল কুমার রায়, সাবেক রাষ্ট্রদূত নিম চন্দ্র ভেীমিক, সুব্রত চৌধুরী, জে এল ভৌমিক, নারাযণ সাহা মনিসহ বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ, ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দির পরিচালনা কমিটির নেতৃবৃন্দ। এই সময় তারা হুসেইন মুহম্মদ এরশাদকে তার মহানুভতার জন্য ধন্যবাদ জানান।

জানা গেছে, রাজধানীর তাঁতী বাজারের নিম্ন-মধ্য বিত্ত পরিবারের মেয়ে নিপা কর্মকার। নিপার জন্মদাতা পিতার নাম নারায়ন কর্মকার। নারায়ন কর্মকারে সঙ্গে এরশাদের সম্পর্ক দীর্ঘদিনের। সে সুবাদে নিপাকে ছোটবেলা থেকেই পিতৃস্নেহে বড় করেছেন এরশাদ। নিপাকে পড়াশুনা করিয়েছেন তিনি। একজন পিতা হিসেবে মেয়ের প্রতি যে দায়িত্ব পালন করা দরকার তার সবটুকুই করেছেন এরশাদ। সর্বশেষে রবিবার সোনা গহনা থেকে শুরু করে বিয়ের যাবতীয় খরচ বহন করে এরশাদ তার পালিত কন্যাকে স্বামীর ঘরে পাঠিয়ে দেন।

শেয়ার

আপনার মন্তব্য করুন

Loading Facebook Comments ...