প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জাতীয়

না’গঞ্জ-৩-এ আ’লীগের মনোনয়ন দৌড়ে এগিয়ে আনোয়ারুল কবির ভূঁইয়া

62
না'গঞ্জ-৩-এ আ’লীগের মনোনয়ন দৌড়ে এগিয়ে আনোয়ারুল কবির ভূঁইয়া

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ আসন থেকে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী বাংলাদেশের বিশিষ্ট অর্থনীতিবীদ ও সমাজসেবক আনোয়ারুল কবীরের প্রতি সাধারণ মানুষের সমর্থন দিনকে দিন বেড়েই চলেছে বলে জানা গেছে।

সোনারগাঁয়ের জামপুর ইউনিয়নের বাসিন্দা আনোয়ারুল কবীর দীর্ঘদিন থেকে আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত থেকে বিভিন্ন সামাজিক কর্মকাণ্ডে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখায় সোনারগাঁবাসী আগামী দিনের এমপি হিসেবে তাকেই যোগ্য বলে মনে করছেন।

সূত্রে প্রকাশ, প্রাচ্যের ডান্ডি নারায়ণগঞ্জের ইতিহাস আর ঐতিহ্যের লীলাভূমি সোনারগাঁ। এখানে বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন রাজনৈতিক দল থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হলেও প্রকৃতপক্ষে সোনারগাঁয়ের অবকাঠামোগত উন্নয়ন কোন এমপিই করেননি বলে সোনারগাঁবাসীর কাছ থেকে জানা গেছে।

যখন যে সরকার ক্ষমতায় গেছে, সে সরকারের এমপি হয়ে প্রত্যেকেই নিজের আখের গুছিয়েছে, সোনারগাঁবাসীর ভাগ্যের কোন পরিবর্তন হয়নি। তাই আগামী নির্বাচনে তারা এ আসন থেকে নতুন মুখ দেখতে চায়, যে নিজের বদলে সোনারগাঁবাসীর উন্নয়নে অবদান রাখবে। আর এ ক্ষেত্রে পরিবর্তনের অঙ্গিকার নিয়ে জনসমর্থনে সবচেয়ে এগিয়ে রয়েছেন বাংলাদেশের বিশিষ্ট অর্থনীতিবীদ ও সমাজসেবক আনোয়ারুল কবীর।

সোনারগাঁয়ের জামপুর ইউনিয়নের বাসিন্দা মরহুম আবুল হাশেম ভূইয়ার বড় ছেলে আনোয়ারুল কবীর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ফাইন্যান্সে মাষ্টার্স সম্পন্ন করেন এবং আইন বিষয়ে উচ্চতর ডিগ্রি অর্জণ করেন। কর্মজীবনে তিনি বাংলাদেশ সিকিউরিটি এন্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের নির্বাহী পরিচালক পদে নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করেন।

এছাড়াও এশিয়ান উন্নয়ন ব্যাংকের প্রকল্প পরিচালক পদে এবং জাতি সংঘের বাংলাদেশ বিভাগে প্রকল্প পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। তাছাড়াও বাংলাদেশ সরকারের অর্থ, পরিকল্পনা, বন ও পরিবেশ মন্ত্রনালয়ে গুরুত্বপূর্ণ পদেও কর্মরত ছিলেন। ব্যক্তি জীবনে তিন সন্তানের জনক আনোয়ারুল কবীর বর্তমানে বিভিন্ন জনহিতকর কাজে নিজেকে নিয়োজিত রেখেছেন।

রাজনৈতিক জীবনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শের সৈনিক আনোয়ারুল কবীর ছাত্র জীবন থেকেই আওয়ামী লীগের রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। ১৯৭৯-৮০ সালে তিনি সোনারগাঁ থানা ছাত্রলীগের আহবায়ক ছিলেন।

১৯৮১ সাল থেকে ১৯৮৫ সাল পর্যন্ত নারায়ণগঞ্জ শহর ছাত্রলীগের সহ সভাপতি পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। এরপর ৯০’র স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন। বর্তমানেও বিভিন্ন সামাজিক কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে মানব সেবায় নিয়োজিত রয়েছেন। আর এর ফলে সোনারগাঁবাসীর কাছে গ্রহণযোগ্য ব্যক্তিত্বে পরিণত হয়েছেন। দীর্ঘদিন থেকে উন্নয়নবঞ্চিত সোনারগাঁয়ের মানুষ তাই আগামী দিনের কাণ্ডারী হিসেবে আনোয়ারুল কবীরকেই বেছে নিতে চাইছে।

এ বিষয়ে আনোয়ারুল কবীর জানান, আমি ছাত্রজীবন থেকেই জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর আদর্শে বিশ্বাসী ছিলাম। আমি আমার কর্মজীবনেও সেই আদর্শ ধরে রাখার চেষ্টা করেছি। বর্তমানে বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের ধারা অব্যহত রাখতে চাই। সোনারগাঁবাসী যদি চায় এবং দলীয় মনোনয়ন বোর্ড যদি যোগ্য মনে করে তবে অবশ্যই আমি আগামী নির্বাচনে নৌকা প্রতীকে নির্বাচন করবো এবং বিগত দিনে সোনারগাঁবাসীর সকল বঞ্চনা দুর করার চেষ্টা করবো।

শেয়ার

আপনার মন্তব্য করুন

Loading Facebook Comments ...